৪৫টি গ্রামে পাঁচ  হাজার অসহায়  আদিবাসী পরিবারের নিকট ত্রান সামগ্রী পৌঁছে দিল বীরভূম আদিবাসী গাঁওতা

এভেন তারাসঃ বিশ্বব্যাপী করোনা ভাইরাসের দাপটে নাজেহাল বিশ্ববাসী। দেশজুড়ে লকডাউন চলেছে। লকডাউনের ফলে যেমন করোনা প্রতিরোধ সম্ভব তেমনি গরীব দরিদ্র দিন আনা দিন খাওয়া সাধারণ মানুষের অবস্থা খুবই সংকট জনক। লকডাউনের ফলে মহামারীর প্রতিরোধে সমস্ত রুজি রোজগার বন্ধ হওয়ার ফলে সাধারণ মানুষজন সমস্যায় পড়েছেন।

এই অবস্থায় বীরভূম জেলার আদিবাসী সাঁওতালদের পাশে দাঁড়িয়েছে ‘বীরভূম আদিবাসী গাঁওতা‘। আদিবাসী গাঁওতার নেতৃত্ব ও কর্মীরা আদিবাসীদের গ্রামে গ্রামে গিয়ে ত্রাণ সামগ্রী পৌঁছে দেওয়ার আপ্রাণ চেষ্টা চালিয়ে যাচ্ছেন।

এখন পর্যন্ত তাঁরা পাঁচ হাজার আদিবাসী সাঁওতাল পরিবারে খাদ্য সামগ্রী পৌঁছে দিয়েছেন। বীরভূম জেলার বিভিন্ন ক্ষেত্র থেকে চাকুরীজীবী আদিবাসী সাঁওতাল মানুষজন আদিবাসী গাঁওতার ত্রাণ তহবিলে সামর্থ্য মত সহযোগিতা পাঠাচ্ছেন। সংগৃহিত সেই তহবিল থেকেই তারা সাধারণ খেটে খাওয়া দরিদ্র আদিবাসীদের সহযোগিতা দিয়ে যাচ্ছেন।

সংবাদে প্রকাশ, বীরভূম আদিবাসী গাঁওতার সভাপতি রবীন সরেন জানিয়েছেন, ২রা এপ্রিল থেকে বীরভূম জেলার বিভিন্ন গ্রামে করোনা ভাইরাস বিষয়ে সচেতনতা এবং ত্রাণ সামগ্রী নিয়ে তাঁরা হাজির হয়েছেন। ২রা এপ্রিল থেকে ১২ই এপ্রিল পর্যন্ত বীরভূমের ৪৫ টি আদিবাসী সাঁওতাল গ্রামে গাঁওতার কর্মী সদস্যরা পৌঁছেছেন। গড়ে প্রতিটি গ্রাম থেকে ১০০টি করে পরিবারের হাতে ত্রাণসামগ্রী পৌঁছে দিয়েছেন তাঁরা। প্রতিটি পরিবারের হাতে নূন্যতম  চার কেজি চাল, দু কেজি আলু সহ পরিবার প্রতি হাত ধোয়ার সাবান সরবরাহ করা হচ্ছে।

  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •   
  •  

Leave a Comment